হৃদয় বিদারক ঘটনাঃ প্রাইভেট পড়তে যাওয়া ছাত্রীর রক্তাক্ত লাশ মিললো সবজি বাগানে

সাতক্ষীরার দেবহাটা উপজেলায় এক স্কুলছাত্রীর রক্তাক্ত মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। শুক্রবার সকালে উপজেলার টিকেট গ্রামের এক সবজি বাগান থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করা হয়। নিহত পূর্ণিমা দাস (১৫) টিকেট গ্রামের শান্তি রঞ্জন দাসের মেয়ে। সে গাভা একেএম মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণির শিক্ষার্থী ছিল।

বিষয়টি নিশ্চিত করে দেবহাটা থানার পরিদর্শক (তদন্ত) ফরিদ আহমেদ জানান, মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য সাতক্ষীরা সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। নিহতের শরীরে একাধিক জখমের চিহ্ন রয়েছে। হত্যাকারীদের শনাক্তের চেষ্টা চলছে।

নিহত স্কুলছাত্রীর বাবা শান্তি রঞ্জন বলেন, পূর্ণিমা বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় প্রাইভেট পড়ার জন্য বাড়ি থেকে বের হয়ে আর ফেরেনি। শুক্রবার সকালে তারক মণ্ডলের সবজি বাগানে তার লাশ পাওয়া যায়।
তিনি অভিযোগ করেন, তার মেয়েকে কেউ জোরপূর্বক তুলে নিয়ে পার্শ্ববর্তী তারক মণ্ডলের সবজি বাগানে ধর্ষণের পর হত্যা করেছে।
শান্তি রঞ্জন জানান, পার্শ্ববর্তী এলাকার শিবু মণ্ডলের ছেলে পার্থ মণ্ডল দীর্ঘদিন ধরে তার মেয়েকে প্রেমের প্রস্তাব দিয়ে উত্ত্যক্ত করে আসছিল। ঘটনার পর থেকে পার্থ মণ্ডল পলাতক।

পার্থ মণ্ডলই সহযোগীদের নিয়ে তার মেয়েকে ধর্ষণের পর হত্যা করেছে বলে ধারণা করছেন শান্তি রঞ্জন।
তবে পার্থ মণ্ডলের বাবা শিবু মণ্ডল এ ধরনের অভিযোগ অস্বীকার করেছেন। তিনি বলেন, ‘আমার ছেলেকে ফাঁসানোর জন্য এ ধরনের অভিযোগ করা হচ্ছে।’
শিবু মণ্ডল আরও বলেন, ‘ওই পরিবারের সঙ্গে আগে থেকেই আমাদের বিরোধ। ওই বিরোধের জের ধরে মিথ্যা অভিযোগ করা হচ্ছে।’

About desk

Check Also

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় হিযবুত তাহরীর সদস্য গ্রে’ফ’তা’র।

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার কসবায় হিযবুত তাহরীর (নিষিদ্ধ ঘোষিত জঙ্গি সংগঠন) এক সদস্যকে গ্রেফতার করেছে র‍্যাব। গত শুক্রবার …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *